বুধবার, ফেব্রুয়ারি ২১

কৃষিকাজ, বিশ্বাস ও জনশ্রুতির ‘তরমুজ ফলের দেশ’

0

আমার এযাবৎ যে কিঞ্চিৎ লেখালেখি, তারে দুই ভাগে ভাগ করি আমি। প্রথম ভাগে প্রথম তিনটা বই। পরের ধাপে তারপরের যত লেখালেখি। এ দুই ধাপের মাঝের সীমারেখা টেনে দিয়েছে ‘কমিকস, ক্যামেরা, ট্র্যাভেলগ ইত্যাদি’ নামক বইটা। ‘কমিকস, ক্যামেরা ট্র্যাভেলগ ইত্যাদি’র (প্রকাশকাল-২০১৫; চৈতন্য প্রকাশনী) পরে আবার বেরিয়েছে দুইটা বই। একটা `শস্য ও পশুপালনের স্মৃতি’ (প্রকাশকাল-২০১৫; চৈতন প্রকাশনী)। আরেকটা `আমি ইয়াসিন আমি বোরো ধান’ (প্রকাশকাল-২০২০; কবিতাভবন/বাতিঘর)। আর এবার বেরুবে ‘তরমুজ ফলের দেশ’। তার মানে এবার যে বইটা বেরুবে, এই বইখানা আমার দ্বিতীয় ধাপের লেখার অর্ন্তভুক্ত।

তরমুজ ফলের দেশ ।। বিজয় আহমেদ ।। প্রচ্ছদ : লেখক ।। প্রকাশক : চৈতন্য ।। মূল্য : ১৮০ টাকা

‘তরমুজ ফলের দেশ’ নিয়ে কিছু বলতে গেলে, মুখবন্ধ হিসাবে উপরের কথাগুলা সেরে নিতে হবে। কেননা তিরিশোর্ধ্ব বয়সে এসে, আমি লেখা শুরু করি ’শস্য ও পশুপালনের স্মৃতি’ বইটা। এটা অনেকটা মহাকাব্যিক ঢংয়ে, পর্বে পর্বে ভাগ করে লেখা, এক তরুণ চাষার জীবন। যে আসলে পানি নেমে যাবার পরের ছয় মাসে ফসল ফলায় চরে। বীররসসিক্ত কাহিনিকাব্যের উক্ত বইটা স্বাভাবিকভাবেই অল্প কজন মানুষই পড়েছে।

এরপর আমি লিখি ‘আমি ইয়াসিন আমি বোরো ধান’ নামের একটা বই। খণ্ড খণ্ড কবিতার সকল স্বাধীনতা ও পূর্ণতার নিশ্চিত করার পরেও, সবগুলা কবিতা মিলে আবার একটা পুথিঁর মালার মতো, একটা কাহিনিতে পৌঁছায়। এই গ্রন্থটা আসলে বোরো ধানের মৌসুমে টাঙ্গাইল-সিরাজগঞ্জ অঞ্চলের মানুষজনের জীবন-কথা। বোরো ধানের মৌসুম, মানে বৈশাখের দাবদাহ, তার সাথে সমাজ ও মানুষের জীবনের সাথে জড়িয়ে থাকা বিশ্বাস, মিথ এইগুলার উপর ভর করে দাঁড়ায় এতিম ইয়াসিনের জীবন।

এরপরের বইটা আসলে ‘তরমুজ ফলের দেশ’ নামে ছাপা হইতেছে সিলেটে, চৈতন্য প্রকাশনীর কারখানায়। এই বইটা আসলে, ব্যক্তি ইয়াসিনকে ছাড়িয়ে বহু ইয়াসিনের দিকে ছড়িয়ে যাওয়ার গান। এখানে আর ‘আমি’ নাই। এখানে যে বয়ান তার মূল আসলে, ‘আমরা’র। সমাজের সমগ্রের সত্তার। এছাড়াও, সমাজের সাথে ধর্ম বা বিশ্বাস কীভাবে ওতোপ্রোত ভাবে জড়িয়ে থাকে, এই বইকে তার গল্পও বলা যায়। আর সবশেষে, এ বই মূলত সমস্ত কাজ, রতি, আরতি, যুদ্ধ, চাষবাস ও পশুপালনে অভিজ্ঞ শতবর্ষী গ্রাম-সমাজ ও মানুষের সমর্পণের কথা বলতে চায়। এ সমর্পণ অসীম ক্ষমতাবান, দিনদুনিয়ার মালিক খোদার প্রতি।

০২
বাংলাদেশের কবিতায়, শতবছর ধরে প্রবাহিত জনসমাজ ও জীবনের ক্ষুদ্রাতিক্ষুদ্র নানান অংশকে উপজীব্য করে হাতে গোনা কয়েকজন কবি, কবিতা চর্চা করেছেন। আমিও তারই ধারাবাহিকতার অংশ হিসেবেই, জোয়াল তুলেছি কাঁধে। বহুদিনের কবিতা চর্চা ও পাঠ আমাকে দেখিয়েছে যে, সিংহভাগ কবিই বৃহত্তর বাংলাদেশ ও এই সমাজের জীবন-সংগ্রাম, বিশ্বাস, মিথ– এড়িয়েই গিয়েছেন কবিতায়, ব্যক্তিগতের খোঁজ করতে গিয়ে। অনেকের কবিতা পড়ে মনে হতে পারে, আধুনিক কবিতা যেন শুধু ব্যক্তির নৈসঙ্গ, বিকৃতি, সুখ ও কামনার অংশ।

ধারাবাহিতকার অংশীদার হিসেবেই, আমি জনসমাজ ও জনশ্রুতি ও বিশ্বাসের কথা বলতে চেয়েছি এ গ্রন্থে। কেননা আমি বিশ্বাস করি, সমাজে দুইভাবেই যাওয়া যায়, কখনো একক ব্যক্তি, কখনো-বা বহুর ভিতর দিয়ে সমাজের প্রবেশ করা যায়। এ ভাবনা থেকেই এ গ্রন্থে ব্যক্তি না, বহুত্বের কথা বলতে চেয়েছি। বহুমানুষের জীবনের সাথে জড়িত বিশ্বাস, সংগ্রাম, প্রেম, রুপকথা, মিথ নিয়ে একটা চলমান সমাজের কথা বলতে চেয়েছি। যে জনসমাজের মূল চালিকাশক্তি হলো কর্ম (কৃষিকাজ), বিশ্বাস ও জনশ্রুতি। ‘তরমুজ ফলের দেশ’ গ্রন্থটি আসলে এই মূল চালিকাশক্তিগুলোই আবিষ্কার করতে চেয়েছে কবিতায়।

এই গ্রন্থে যমুনাপাড়ের টাঙ্গাইল ও সিরাজগঞ্জের বিস্তৃত ভূমি ও অঞ্চলের জনজীবন বিবৃত হয়েছে। যে জীবনে নদী ভাঙ্গন যেমন নিত্যকার ঘটনা, তেমনি এর উর্বর ও স্বর্ণফলা জমিনও উদযাপনের। এ বইয়ের চরিত্র মূখ্যত জনজীবন ও ধর্ম নিজে, সাথে জমিন ও আসমান। এই এলাকার জীবন নদী, মাছ, কৃষি ও পশুপালন নির্ভর। যে কারণে জনশ্রুতির পাশাপাশি এগুলোও ঘুরেফিরে আসে।

০৩
কবিতা এক দূরবর্তী যাত্রাপথ। বহু পাঠে এর বহুবিধ অর্থ উৎপাদিত হয়। এছাড়াও কবিতাকে অনির্দিষ্টের প্রতি ছুঁড়ে দেওয়া কোনো মুচকি হাসি বলেই মনে করি। এখানে সাফল্য নামক কোনো শব্দ আছে বলে মানি না আমি। সকল চেষ্টা ক্রমাগত বিফল করার মনোবাসনায় প্রতিটি নতুন লেখার শুরুর বিন্দু আমার। তবে একটা বিষয়কে আমি গুরুত্বপূর্ণ বলে মানি, তা হলো, আমার লেখা আসলে নিজ কৌম, জনজীবন ও তার স্বরুপ উন্মোচন করার চেষ্টারই একটা অংশমাত্র।

বিজ্ঞাপন
প্রিয় লেখক, ২০২১ গ্রন্থমেলায় প্রকাশিত আপনার বইটি নিয়ে লিখুন ‘আমার বই’ বিভাগে। লেখা পাঠান আমাদের ইমেইলে। সঙ্গে আপনার এবং বইয়ের পরিচিতিমূলক তথ্য এবং ছবি। লেখা পাঠানোর মেইল : editor.sreebd@gmail.com

শেয়ার করুন

লেখক পরিচিতি

জন্ম ১৬ ডিসেম্বর, নান্দাইল, ময়মনসিংহ। কবিতার বই: সার্কাস-তাঁবুর গান, মুচকি হাসির কবিতা, কমিকস, ক্যামেরা, ট্র্যাভেলগ ইত্যাদি, শস্য ও পশুপালনের স্মৃতি, আমি ইয়াসিন আমি বোরো ধান। ফিল্মের বই (যৌথ সম্পাদনা): ফিল্মমেকারের ভাষা (চার পর্ব: ইরান, আফ্রিকা, লাতিন ও কোরিয়া)। কিশোর উপন্যাস: বাবলুর অদ্ভুত সাইকেল। কিশোর কবিতার বই: লাল মোরগের ঝুঁটি। সম্পাদিত ওয়েবম্যাগ (যৌথ): লাল জীপের ডায়েরী

error: আপনার আবেদন গ্রহণযোগ্য নয় ।
Ad_Icchesrabon-02